rockland bd

শাহজাদপুরে নিখোঁজ ব্যবসায়ীর লাশ নদী থেকে উদ্ধার

0

নিহত দবির মোল্লা


মাসুদ মোশাররফ, শাহজাদপুর (সিরাজগঞ্জ) প্রতিনিধি : সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার পোরজনা ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের জোতপাড়া গ্রামের পোলট্রি ব্যবসায়ী দবির মোল্লা (৬২) নিখোঁজের একদিন পর সোমবার সকালে পুলিশ হুরাসাগর নদী থেকে ভাসমান অবস্থয় তার লাশ উদ্ধার করেছে।
নিহত দবির মোল্লা ও গ্রামের মৃত তাহাজ মোল্লার ছেলে। বাড়ি থেকে আধা কিলোমিটার দূরের কবরস্থানের পাশে হুরাসাগর নদীতে তার লাশ ফাসতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে শাহজাদপুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে লাশ উদ্ধারের পর ময়না তদন্তের জন্য সিরাজগঞ্জ ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।
এ ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। অপরদিকে নিহতর স্বজনদের আহাজারিতে এলাকার বাতাস ভারি হয়ে উঠেছে। এ ঘটনায় এ দিন দুপুরে শাহজাদপুর থানা সার্কেলের এএসপি ফাহমিদা হক শেলী ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।
এ ব্যাপারে নিহতর ছেলে নিয়ামত হোসেন ও ভাতিজা ইছাক আলী জানান, গত রোববার দুপুরের পর পোলট্রি ব্যবসায়ী দবির মোল্লা বাড়ি থেকে বেড় হয়ে জামিরতা বাজারে যায়। গভীর রাত হয়ে গেলেও তিনি আর বাড়ি ফিরে আসেননি। রাতভর বিভিন্ন স্থানে তাকে খোজাখুজি করেও তার কোন সন্ধান পাওয়া যায়নি। সোমবার সকালে এলাকাবাসি হুরাসাগর নদীতে তার লাশ ভাসতে দেখে খবর দেয়। পরে পুলিশ এসে ঘটনাস্থল থেকে তার লাশ উদ্ধার করে। তারা আরো বলেন, পূর্ব শক্রতার জের ধরে ঘাতকরা পরিকল্পিত ভাবে তাকে অপহরণের পর শ্বাসরোধে হত্যার পর লাশ গুম করতে নদীতে ফেলে দিয়েছে। তারা এ হত্যার সাথে জড়িতদের দ্রুত সনাক্ত করে গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবী জানান।
এ ব্যাপারে শাহজাদপুর থানার অফিসার ইনচার্জ আতাউর রহমান বলেন,প্রাথমিক ভাবে এটাকে হত্যা বলেই মনে হচ্ছে। পূর্ব শক্রতার জের ধরে তাকে শ্বাসরোধে হত্যার পর লাশ গুমের উদ্দেশ্যে নদীতে ফেলে দিয়েছে। তিনি বলেন, বিষয়টি নিশ্চিত হতে লাশ ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। ময়না তদন্তের রিপোর্ট হাতে পেলে নিহত হওয়ার প্রকৃত কারণ জানা যাবে। তিনি আরো বলেন,এ ঘটনায় নিহতর ছেলে বা স্ত্রী বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছে।

আমিন/৮জুলাই/২০১৯

Comments are closed.