rockland bd

মিরপুরে শিক্ষার্থীদের ওপর পুলিশ ও যুবকদের হামলা

0

নিজস্ব প্রতিবেদক


নিরাপদ সড়কসহ বিভিন্ন দাবিতে আন্দোলন চলাকালে মিরপুর-১৩ ও ১৪ নম্বরে শিক্ষার্থীদের ওপর পুলিশ ও কিছু যুবক হামলা করেছে।

ইটপাটকেল ও লাঠি নিয়ে এ হামলা করা হয়। এতে বেশ কিছুসংখ্যক শিক্ষার্থী রক্তাক্ত হয়েছে। এ ঘটনায় দীর্ঘ সময় শিক্ষার্থীদের সঙ্গে পুলিশ ও লাঠিয়াল যুবকদের সঙ্গে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় সারাদেশে শিক্ষার্থীদের মধ্যে নতুন করে ক্ষোভের জন্ম দিয়েছে বলে জানা যাচ্ছে।
প্রত্যক্ষদর্শীদের বর্ণনায়, বিকাল ৪টা দিকে মিরপুর-১৩ ও ১৪ নম্বরের মধ্যে বিআরটিএ থেকে কাফরুল থানা হয়ে পাবলিক অর্ডার ম্যানেজমেন্টের গেইট পর্যন্ত সড়কে এই ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া চলে। সংঘর্ষের পর একাধিক শিক্ষার্থীকে সেখানে রক্তাক্ত অবস্থায় দেখা গেছে। ওই ঘটনায় আহত এক কলেজ ছাত্র বলেছেন, মিরপুর-১৪ নম্বর এলাকায় নিরাপদ সড়কের দাবিতে তাদের মানবন্ধন কর্মসূচি চলছিল। পুলিশ তাদের সরাতে গেলে শিক্ষার্থীরা ইট পাটকেল ছুড়তে শুরু করে।
তখন পুলিশ লাঠিপেটা শুরু করলে পুরো এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। ওই এলাকায় পুলিশের সঙ্গে বেশ কিছু সময় বিক্ষোভকারীদের ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া চলে। এ সময় পুলিশের সঙ্গে একদল যুবককেও লাঠি হাতে শিক্ষার্থীদের পেটাতে দেখা যায়।
ঢাকা মহানগর পুলিশের পল্লবী জোনের সহকারী কমিশনার ইয়াসমীন সাইকা পাশা বলেন, শিক্ষার্থীরা কোনো কারণ ছাড়াই কাফরুল থানায় হামলার চেষ্টা করে। পাবলিক অর্ডার ম্যানেজমেন্ট বিভাগের প্রধান ফটক ভেঙে ফেলার চেষ্টা করে। তারা পুলিশের দিকে ইটপাটকেল ছোড়ে। পরে পুলিশ তাদের ধাওয়া দিয়ে সরিয়ে দেয়। তখন তারা সরে ১০ নম্বর গোল চত্বরের দিকে যায়। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক শিক্ষার্থী বাংলাটুডেকে বলেন, গতকাল বেলা চারটার দিকে মিরপুর ১৪ নম্বরে তাদের জমায়েত স্থলে পুলিশ এসে অপমান অপদস্থ করে। এরপর পুলিশের সঙ্গে পরিচয়পত্র ছাড়া কিছু যুবক এসে শিক্ষার্থীদের গায়ে হাত তোলে ও ধাওয়া দেয়। শিক্ষার্থীরা তখন মিরপুর ১০ নম্বরে অবস্থান নেয়। তাদের অভিযোগ, পুলিশ ও স্থানীয় যুবকেরা মিলে ছত্রভঙ্গ করে দেওয়ার চেষ্টা করছে। তবে তারা পথ ছাড়েনি। সেখানে দেখা যায়, ছবি তুলতে ও ভিডিও করতে বাধা দিচ্ছিল পুলিশ ও কিছু যুবক।
ঢাকা শহর জুড়ে আজও পাবলিক বাস খুব একটা চলাচল করতে দেখা যায়নি। অনেকে ব্যক্তিগত গাড়ি রাস্তায় বের করেননি। যারা রাস্তায় ব্যক্তিগত গাড়ি নিয়ে বের হয়েছেন তাদের কেউ-কেউ বিড়ম্বনায় পড়েছেন।
ঢাকা থেকে দূরপাল্লার কোন বাস চলাচল করছে না। পরিবহন শ্রমিকরা বলছেন নিরাপত্তাহীনতার কারণে তারা বাস চলাচল বন্ধ রাখা হয়েছে।
এদিকে ঢাকার পাশাপাশি চট্টগ্রাম শহর এবং রাজশাহীতে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা সড়ক অবরোধ করেছে।
বাংলাটুডে/এবিএস

Comments are closed.