rockland bd

স্বাগতম হে মাহে রমজান

0


এ.এস.লিমন, রাজারহাট(কুড়িগ্রাম)প্রতিনিধি, (বাংলাটুডে) :
বছর ঘুরে মুমিন-মুসলমানের দ্বারে রহমত, নাজাত, মাগফিরাতের সওগাত নিয়ে ফের এসেছে পবিত্র রমজান। পাপমুক্ত জীবনলাভের এই মাসকে হৃদয়ের গহিন অতল থেকে জানাই মোবারকবাদ। আহলান সাহলান মাহে রমজান। স্বাগতম হে মাহে রমজান।
সমাজের সর্বস্তরে রমজানকে বরণ করে নিতে, রমজানের ব্যাপারে সচেতনতা তৈরি করতে এবং পবিত্র এই মাসের হুকুম-আহকাম পালনে যথাযথ প্রস্তুতি গ্রহণে আলোচনা করা; এর আগমনী বার্তা মুসলমানদের কাছে পৌঁছে দেওয়া ইমানের অপরিহার্য দাবি। রমজানে প্রত্যেক মুসলিম নিজেকে যেমন ইমানের আলোয় আলোকিত করবেন, তেমনি অন্যকেও সেই আলোর দিকে আহ্বান করবেন।
শুধু নিজের মুক্তিলাভ কামনা প্রকৃত মুক্তি আনতে পারে না। যেমন প্রতিবেশীর ঘর অনিরাপদ থাকলে পূর্ণ নিরাপত্তা বিধান হয় না নিজ ঘরের। এই মাস কল্যাণময়ী। এই মাস কোরআন নাজিলের। এই মাস তাকওয়া, সংযম, সবরের। এই মাস মহান রবের নৈকট্য অর্জনের; তাঁর ভালোবাসায় নিজেকে বিলীন করার।
হে ইমানদাররা! আমাদের ওপর রোজা ফরজ করা হয়েছে। যেভাবে তা ফরজ করা হয়েছিল আমাদের পূর্ববর্তীদের ওপর, যাতে আমরা সংযমী হও। আর যখন রমজান মাস আসে, আসমানের দরজাগুলো খুলে দেওয়া হয় এবং দোজখের দরজাগুলো বন্ধ করে দেওয়া হয়। আর শয়তানকে শৃঙ্খলিত করা হয়।
রোজা এবং কোরআন (হাশরের দিন) আল্লাহর কাছে বান্দার জন্য সুপারিশ করবে। রোজা বলবে, হে পরওয়ারদিগার! আমি তাকে রমজানের দিনে পানাহার ও প্রবৃত্তি থেকে বাধা দিয়েছি। সুতরাং তার ব্যাপারে আমার সুপারিশ কবুল করুন। কোরআন বলবে, আমি তাকে রাতের নিদ্রায় বাধা দিয়েছি। সুতরাং আমার সুপারিশ তার ব্যাপারে কবুল করুন। অতএব উভয়ের সুপারিশই কবুল করা হবে।
উল্লেখিত এ মাসের পূর্ণ হক আদায় করতে সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা করতে হবে। যদি পবিত্র এ মাসের হুকুম-আহকাম যথারূপে পালন করতে পারি, তবেই মিলবে পূর্ণ প্রতিদান। কিন্তু রোজা যদি রাখা হয় পরিবার বা সমাজের চাপে, তা যদি হয় লোকদেখানো, যদি পাপ থেকে নিজেকে বিরত রাখা না যায়, তবে কোনো প্রাপ্তির আশা করা যায় না।
আল্লাহ তায়লা আমাদের সবাইকে সঠিকভাবে সিয়াম সাধনার তওফিক দান করুন। আমিন। রোজা সংক্রান্ত মাসআলা যাদের ওপর রোজা রাখা ফরজ : প্রাপ্তবয়স্ক, সুস্থ, মুসাফির নয়।এমন মুসলমানের ওপর রমজানে রোজা রাখা ফরজ।
রোজা শুদ্ধ হওয়ার শর্ত হলো। ১. নিয়ত করা ২. মহিলাদের ঋতুস্রাব অর্থাৎ হায়েজ ও নিফাস থেকে মুক্ত হওয়া ৩. রোজা বিনষ্টকারী বিষয় থেকে দূরে থাকা।

আমিন/৭মে/২০১৯

Comments are closed.