rockland bd

নাটোরে ছাত্রলীগ কর্মী হত্যায় চারজনের মৃত্যুদন্ড

0


এমএম আরিফুল ইসলাম, নাটোর প্রতিনিধি (বাংলাটুডে) :
নাটোরে একটি চাঞ্চল্যকর হত্যা মামলার রায়ে অভিযুক্ত চারজনকে মৃত্যুদন্ড এবং একজনকে যাবজ্জীবন কারাদন্ডের আদেশ দিয়েছে আদালত। বৃহস্পতিবার নাটোরের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ সাইফুর রহমান সিদ্দিক এই রায় প্রদান করেন।
মৃত্যুদন্ডপ্রাপ্ত চারজন হচ্ছে-নাটোরের লালপুর উপজেলার বাহাদুরপুর গ্রামের মোঃ শহিদুল ইসলাম মাষ্টারের দুই ছেলে শামীম ও সুজন, একই গ্রামের আব্দুল মালেকের ছেলে আব্দুল মতিন এবং কৃষ্ণপুর গ্রামের ইসমাইলের ছেলে শুকুর ওরফে বাবু। যাবজ্জীবন দন্ডপ্রাপ্ত আসামী সান্টু একই জেলা ও উপজেলার বাহাদুরপুর গ্রামের ফয়েজ উদ্দিনের ছেলে।
মৃত্যুদন্ডপ্রাপ্ত চারজনকে একই সাথে দশ হাজার এক টাকা অর্থ দন্ড প্রদান করা হয় এবং যাবজ্জীবন দন্ডপ্রাপ্ত একজনকে একই পরিমান অর্থদন্ড অনাদায়ে আরো তিন মাসের কারাদন্ড প্রদান করা হয়েছে।
দন্ডপ্রাপ্তদের মধ্যে শামীম ও শুকুর ওরফে বাবু আদালতে রায় প্রদানকালে উপস্থিত ছিল। মামলার রায়ে অভিযুক্ত ২৩ জনের মধ্যে ১৩ জনকে বেকসুর খালাস প্রদান করা হয় এবং অপর পাঁচজন রাস্ট্র কর্তৃক আগেই খালাসপ্রাপ্ত।
মামলার বিবরণে জানা যায়, ২০০২ সালের ২৮ ফেব্রুয়ারী রাতে নাটোরের লালপুর উপজেলার হাবিবপুর গ্রামের আব্দুস শুকুর মৃধার ছেলে ছাত্রলীগের কর্মী মোয়াজ্জেম হোসেন খাল্লাসকে তাদের বাড়ীর সামনে কুপিয়ে ও গুলি করে হত্যা করা হয়। নিহতের বাবা পরদিন লালপুর থানায় মামলা দায়ের করলে থানার তদন্তকারী কর্মকর্তা এস আই মোয়াজ্জেম হোসেন ৩০ এপ্রিল অভিযোগপত্র দাখিল করলে আদালত বিচারিক কার্যক্রম শুরু করে। শুনানী শেষে আদালতের বিচারক এই চাঞ্চল্যকর হত্যা মামলার রায় প্রদান করেন।

আমিন/১১এপ্রিল/২০১৯

Comments are closed.