rockland bd

ন্যাটো সদস্যদের সামরিক ব্যয় দ্বিগুন করতে ট্রাম্পের আহ্বান

0

বিদেশ, আল জাজিরার প্রতিবেদন


মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ন্যাটোর সদস্য দেশগুলোকে প্রতিরক্ষা ব্যয় দ্বিগুণ করতে বলেছেন। প্রত্যেক দেশকে তাদের জিডিপির ৪ শতাংশ সামরিক খাতে ব্যয় করার ব্যাপারে জোর দিয়েছেন তিনি। যা ন্যাটোভুক্ত দেশগুলোর বর্তমান লক্ষ্যমাত্রার দ্বিগুণ।

ন্যাটোর সদস্য দেশগুলোর প্রধানদের সাথে ট্রাম্প।


ব্রাসেলসে ন্যাটোভুক্ত দেশগুলোর সম্মেলনে ডোনাল্ড ট্রাম্প এ মন্তব্য করেছেন বলে নিশ্চিত করেছে হোয়াউট হাউস মুখপত্র। সূত্র জানায়, ট্রাম্পের এই মন্তব্য আনুষ্ঠানিক কোন প্রস্তাব নয় বরং ন্যাটোভুক্ত ২৯ দেশের প্রধানদের তিনি সামরিক ব্যয় বাড়াতে অনুরোধ করেছেন।

২০১৭ সালে ক্ষমতা গ্রহনের পর থেকেই ট্রাম্প ন্যটো সদস্য দেশগুলোর সমালোচনা করে আসছেন। ট্রাম্প বরাবরই বলে আসছেন সামরিক খাতে ন্যাটোভুক্ত অন্যান্য দেশগুলোর তুলনায় যুক্তরাষ্ট্র তার জিডিপির একটি বৃহৎ অংশ সামরিক খাতে ব্যয় করছে। ট্রাম্পের খেপার মূলে এই অসামঞ্জস্যতা। যুক্তরাষ্ট্রের এ ব্যয়কে তিনি অপ্রয়োজনীয় বোঝা হিসেবে দেখছেন।

এর আগে ব্রসেলস সম্মেলনে ন্যাটোর মহাসচিব জেন্স স্টোলটেনবার্গ বলেছেন, সামনের বছরগুলোতে ন্যাটো সদস্য দেশগুলো তাদের সামরিক বরাদ্দ আরো বৃদ্ধি করবে।

ন্যাটোর সম্মেলনে ডোনাল্ড ট্রাম্প জার্মানির সামরিক খাতে ব্যয়ের জন্য সমালোচনাও করেছেন।

তবে ন্যাটোর সেক্রেটারি জেনারেল জেনস স্টলেনবার্গ বলেছেন, সকল সদস্য দেশের বর্তমান লক্ষ্যমাত্রা জিডিপির ২ শতাংশ ব্যয়ের জন্য মনোনিবেশ করা উচিৎ।

ডোনাল্ড ট্রাম্পের মন্তব্যের প্রেক্ষিতে কোন বক্তব্য দেননি স্টলেনবার্গ। এ বিষয়ে তিনি বলেন, আমার মনে হয় প্রথমে আমাদের উচিৎ হবে জিডিপির ২ শতাংশ লক্ষ্য পূরণ করা। আমরা এভাবে এগোলে সেটা খুবই ভালো ব্যাপার হবে।

স্নায়ুযুদ্ধ কয়েক দশক আগে শেষ হয়েছে উল্লেখ করে ন্যাটোর সেক্রেটারি জেনারেল বলেন, উত্তেজনা কমে যাওয়ায় ন্যাটোভুক্ত দেশগুলো সামরিক খাতে ব্যয় কমিয়ে দিয়েছিলো। কিন্তু এখন উত্তেজনা বাড়ায় ব্যয় বাড়ানোর প্রয়োজন পড়েছে।

এদিকে ডোনাল্ড ট্রাম্পের মন্তব্য নিশ্চিত করে হোয়াইট হাউসের মুখপাত্র সারাহ স্যান্ডার্স বলেছেন, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প দেখতে চান আমাদের মিত্ররা ব্যয় বাড়ানোর কাজ করছে এবং তাদের কর্তব্য আংশিক হলেও পূরণ করছে।

ব্রাসেলসে ন্যাটোর সম্মেলন শেষে হেলসিংকিতে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে বৈঠক করবেন ডোনাল্ড ট্রাম্প।

বাংলাটুডে২৪/আর এইচ

Comments are closed.