rockland bd

ভোটের বিপ্লব করুন, ৩০ ডিসেম্বর আরেক বিজয় দিবস হবে: ড. কামাল

0

জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট প্রধান ড. কামাল হোসেন

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা
বৃহস্পতিবার, বাংলাটুডে টোয়েন্টিফোর:
”আগামী ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আপনারা সাহস করে নেমে পড়ুন, ভোটের বিপ্লব করুন। ১৬ ডিসেম্বর যে বিজয় হয়েছিল, ৩০ ডিসেম্বর তেমনই বিজয় হবে”।
সবাইকে ভোট বিপ্লব করার ডাক দিয়ে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট প্রধান ড. কামাল হোসেন বলেছেন, ১৬ ডিসেম্বরের পর ৩০ ডিসেম্বর হবে জাতির জন্য আরেকটি বিজয় দিবস। কারণ ঐক্যফ্রন্ট নির্বাচনে জয়লাভ করবে।
আজ বৃহস্পতিবার ঐক্যফ্রন্টের পুরানা পল্টনের কার্যালয়ে জোটের সিনিয়র নেতাদের সাথে এক বৈঠক শেষে সংবাদ সম্মেলনে ড. কামাল এসব কথা বলেন।
তিনি বলেন, ‘আমরা বিজয় অর্জন করব… এটা কোনো দলের বিজয় হবে না, এটা হবে জনগণের বিজয়… সবার বিজয়।’
‘ভয় পাওয়ার কিছু নেই। (আমরা) সারাজীবন স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে লড়াই করেছি। আমরা বিজয়ী হয়েছি, স্বৈরাচার নয়। স্বৈরাচার বিজয়ী হলে ৭১ হত না, বাংলাদেশ হত না,’ যোগ করেন ঐক্যফ্রন্ট প্রধান।
বাংলাদেশের জনগণ কখনও অস্ত্র, অর্থ ও ক্ষমতার কাছে নতি স্বীকার করেনি উল্লেখ করে ড. কামাল আশা প্রকাশ করেন, দেশের জনগণ এবারও পরাজিত হবে না।
রাষ্ট্রের মালিক জনগণ উল্লেখ করে ড. কামাল হোসেন বলেন, নির্বাচনই জনগণের মালিকানা নিশ্চিত করবে। ধানের শীষে ভোট দিলে রাষ্ট্রের মালিকানা জনগণের কাছে ফিরিয়ে দেওয়া হবে।
গণফোরাম সভাপতি বলেন, অনেকে ভয় পান, আমরা ভয় পেলে দেশ স্বাধীন করতে পারতাম না। ১৯৯০ সালে দেশ স্বৈরাচারমুক্ত করতে পারতাম না। অতএব, ভোট গণনা না করা পর্যন্ত পাহারা দিন। ১৬ কোটি মানুষ, কতজনকে গ্রেফতার করবে তারা?
উন্নয়নের ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে ক্ষমতাসীনদের প্রচারণায় তাগিদ দেওয়ার দিকে ইঙ্গিত করে ড. কামাল বলেন, উন্নয়ন উন্নয়ন, এটা আইয়ুব খানের প্রত্যাখ্যাত বক্তব্য। ১৯৭১ সালে এটা প্রত্যাখ্যান করা হয়েছে।
কামাল দাবি করে বলেন, মাঠপর্যায় থেকে তিনি নিয়মিত অসংখ্য ফোনকল রিসিভ করছেন এবং জনগণের বিপুল সাড়া পাচ্ছেন ঐক্যফ্রন্টের প্রার্থীরা।

আর এইচ

Comments are closed.