rockland bd

জামালপুর ৫ আসনে সুষ্ঠ নির্বাচনী পরিবেশ চান ঐক্যফ্রন্ট প্রার্থী

0

জামালপুর ৫ আসনে সুষ্ঠ নির্বাচনী পরিবেশ চান ঐক্যফ্রন্ট প্রার্থী

জামালপুর প্রতিনিধি,
বুধবার, বাংলাটুডে টোয়েন্টিফোর:
বিএনপির জাতীয় নিবাহী কমিটির সদস্য জামালপুর (সদর)-৫ আসনের বিএনপি দলীয় প্রার্থী এড. মোঃ ওয়ারেছ আলী মামুন বুধবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে বলেন, আমরা কারো বিরুদ্ধে অভিযোগ করতে চাই না, চাই সুষ্ঠু নির্বাচন, সুষ্ঠুভাবে ভোট গ্রহণের পরিবেশ।
তিনি প্রশাসনের প্রতি দৃষ্টি আকর্ষণ করে আরো বলেন, আমি অভিযোগ করতে চাই না, আবেদন জানাই নিয়ম বহির্ভূত নির্বাচনী ক্যাম্প স্থাপন করে আচরণ বিধি লঙ্ঘন করে শোডাউন করেছে সেগুলো বন্ধ করার। সাধারণ ভোটারদের মাঝে আতঙ্ক সৃষ্টি না করে সবার জন্য সমান সুযোগ সৃষ্টি করার।
এ পর্যন্ত ১৮টি অভিযোগ দেয়া হয়েছে। আমার নির্বাচনী এলাকায় কোথায়ও কোনো পোস্টার নেই। দফায় দফায় দলীয় নেতাকর্মীদের উপর হামলা করে নিজেরাই মামলা দায়ের করছে আমাদের নেতাকর্মীদের উপর।
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে জামালপুর সদরে মহাজোট প্রার্থীর সমর্থক আওয়ামীলীগের কর্মীরা দফায় দফায় ঐক্যফ্রন্ট প্রার্থীর ঐক্যফ্রন্ট প্রার্থীর পেস্টার ছেঁড়া, নির্বাচনী প্রচার ক্যাম্প ভাংচুর এবং বিএনপির নেতাকর্মীদের বাড়ি-ঘর ও দোকানপাটে হামলা চালিয়ে ভাংচুর করছে। বিএনপির কর্মী
সমর্থক ও ভোটারদের বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে ভোট কেন্দ্র্রে না যাওয়ার হুমকিও ভয়ভীতি প্রদর্শনেরও অভিযোগ করেছে ঐক্যফ্রন্ট প্রার্থী।
জামালপুর শহরের সর্দারপাড়ায় প্রধান নির্বাচনী কার্যালয়ে
অ্যাডভোকেট ওয়ারেছ আলী মামুন আরো বলেন, প্রতিক বরাদ্ধের পর প্রতিপক্ষ প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার মোজাফফর হোসেনের কর্মী সমর্থকরা মোটর সাইকেলের বহর নিয়ে সদর আসনের প্রত্যেক এলাকায় ভিতিকর পরিবেশের সৃষ্টি করেছে।
মঙ্গলবার (১৮ ডিসেম্বর) দুপুরে জামালপুর শহরের হাটচন্দ্রা মিয়াবাড়ি বাজারে আওয়ামীলীগের প্রার্থীর উপস্থিতিতে আমার নির্বাচনী প্রচার ক্যাম্প ভাংচুর করেছে। এছাড়াও একই দিন রাতে শহরের রামনগর সাতরাস্তা মোড়ে স্বেচ্ছাসেক লীগের সভাপতি তানভীর আহম্মেদের নেতৃত্বে মোটরসাইকেলের বহর নিয়ে
আওয়ামীলীগের কর্মিরা নির্বাচনী প্রচার ক্যাম্পে হামলা চালিয়ে ভাংচুর করে, রশিদপুর চৌরাস্তা মোড়ে আওয়ামীলীগ নেতা চাঁন মাষ্টারের নেতৃত্বে বিএনপি সমর্থকের ৪/৫টি ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠান ভাংচুর ও দিগপাইত ইউনিয়ন যুবদলের সভাপতি আশরাফ হোসেনের বাড়ি-ঘর ভাংচুর ও লুটপাট করেছে। এছাড়াও কৈডোলা শাহবাজপুর, পক্ষীমারী শিমুলতলা, চান্দের মোড় ও মেষ্টায় নির্বাচনী প্রচার ক্যাম্প ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে।
এসব ঘটনার আইনগত ব্যবস্থা নিয়ে নির্বাচনে সুষ্ঠ পরিবেশ তৈরি করতে রির্টানিং অফিসারসহ স্থানীয় প্রশাসনের প্রতি আহবান জানান।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক শহিদুল হক খান দুলাল, বিশেষ সম্পাদক লোকমান আহমেদ লোটন, জেলা বিএনপির ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক খন্দকার আহসানুজ্জামান রুমেল, শহর বিএনপির সভাপতি লিয়াকত আলী, সাধারন সম্পাদক মাঈন উদ্দিন বাবুল, স্বেচ্ছসেবক দলের সভাপতি সজিব খান প্রমুখ।

মিঠু আহমেদ/আর এইচ

Comments are closed.