rockland bd

আইনশৃঙ্খলা বাহিনী পরিচয়ে এবার দম্পত্তিকে অপহরণ

0

অপহরণ হওয়া দম্পত্তি মো.তুহিন সরকার (২০) ও তাঁর স্ত্রী নাসরিন আক্তারকে (১৮)

জামালপুর প্রতিনিধি, বাংলাটুডে টোয়েন্টিফোর-
আইনশৃঙ্খলা বাহিনী পরিচয়ে মেলান্দহ উপজেলার চরবানিপাকুরিয়া ইউনিয়নের মধ্যচর গ্রাম থেকে এ দম্পত্তিকে নিজ বাড়ি থেকে মাইক্রোবাসে তুলে নেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। গত রবিবার সন্ধ্যার দিকে এ ঘটনা ঘটে। কিন্তু জেলা কোন আইনশৃঙ্খলা বাহিনী এ ব্যাপারে কিছুই জানেন না।
তুলে নিয়ে যাওয়া স্বামী-স্ত্রী হলো মো.তুহিন সরকার (২০) ও তাঁর স্ত্রী নাসরিন আক্তার (১৮)। মো.তুহিন সরকার ওই ইউনিয়নের মধ্যচর গ্রামের মো.মফিজ সরকারের ছেলে। এখন পর্যন্ত কোথাও তাঁদের কোনো সন্ধান পাওয়া যায়নি। এ নিয়ে চরম উৎকণ্ঠায় রয়েছে নিখোঁজ দম্পত্তির স্বজনরা।
নিখোঁজ পরিবারের সদস্য ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, রবিবার বিকাল সাড়ে চার টারদিকে হঠাৎ সাদাপোশাকে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী পরিচয়ে ১৫ থেকে ২০ জনের একটি দল ওই বাড়িতে ঢুকে। তাঁদের মধ্যে কয়েকজন নারীও ছিলেন। বাড়ির লোকজন কোনো কিছু বুঝে উঠার আগেই মো.তুহিন সরকার (২০) ও তাঁর স্ত্রী নাসরিন আক্তারকে (১৮) একটি মাইক্রোবাসে তুলে নেয় তারা। তারপর মাইক্রোবাসটি জেলা সদরের দিকে চলে যায়। এরপর থেকে পরিবারের লোকজন থানা, ডিবি ও র‌্যাব থেকে শুরু করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সকল দপ্তরে খোঁজাখুজি করেও তাঁদের সন্ধান পাচ্ছেন না।
নিখোঁজ তুহিন সরকারের বাবা মফিজ সরকার বলেন, যারা তুলে নিয়েছেন, তাঁদের কাছে অস্ত্র ও হ্যানকাপ ছিল। কিন্তু পুলিশ র‌্যাবসহ সবাই বলছেন তাঁরা তার ছেলে ও ছেলের বউকে তুলে নেননি। আহাজারি করে তিনি বলেন, ৩০ ঘন্টা অতিবাহিত হলেও তাঁদের কোনো সন্ধান না পেয়ে উভয় পরিবার চরম উৎকণ্ঠায় রয়েছেন। তিনি বুঝে উঠতে পারছেন না। নিরীহ দম্পত্তিকে কারা কি কারণে এভাবে তুলে নিয়ে যাবে।
মেলান্দহ থানার ওসি গাজী মো.সাখাওয়াত হোসেন বলেন, মেলান্দহ থানার কোন পুলিশ সেখানে যায়নি। এ ব্যপারে তারা কিছুই জানেন না। নিখোঁজ পরিবারের পক্ষ থেকেও এখনও কোন জিডি বা অভিযোগ করেনি। ওই ইউনিয়নের সোহেল মেম্বার থানায় একটি ফোন করে বিষয়টি শুধু অবহিত করেছে। বিষয়টি নিয়ে আমরাও আপনাদের মতো ধোয়াশার মধ্যে আছি।
তিনি বলেন, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অন্য কানো সংস্থা তাদের আটক করলেও লোকাল থানাকে তা অবহিত করতে হবে। কিন্তু তাঁদের গ্রেফতার বা আটকের কোনো তথ্য তাদের জানা নেই।
জামালপুর পুলিশ সুপার দেলোয়ার হোসেন পিপিএম বলেন, এ ব্যপারে নিখোঁজ পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় কোন জিডি কিংবা অভিযোগ কিছুই করেনি। সাংবাদিক ও লোকমুখে বিষয়টি শোনেছি। এ ব্যপারে আমি খোঁজ-খবর নিচ্ছি।

মিঠু আহমেদ/আর এইচ

Comments are closed.